ইউটিউব থেকে কিভাবে ইনকাম করা যায় - How To Make Money On Youtube

আজকের দিনে প্রাইস ঘরে বসে টিভি দেখা আর নেই বললেই চলে কারণ এখন মানুষ ইন্টারনেটে ইউটিউব দেখতে পছন্দ করেন। তাই আজকের দিনে ইউটিউব ভীষণভাবে জনপ্রিয় হয়ে উঠেছে সবার কাছে। কিন্তু আপনারা কি জানেন ইউটিউব থেকে প্রতিদিন প্রায় হাজার হাজার ডলার টাকা ইনকাম করা যায় (How To Make Money On Youtube) ।আজকে আমি আপনাদের সাথে আলোচনা করতে চলেছি যে আপনি একটি ইউটিউব চ্যানেল বানিয়ে এবং তাতে আপনি কিছু ভিডিও পোস্ট করে মাসের শেষে 1000 ডলার ইনকাম করতে পারবেন।

ইউটিউব থেকে কিভাবে ইনকাম করা যায় - How To Make Money On Youtube

ইউটিউব থেকে কিভাবে ইনকাম করা যায়


ইউটিউব থেকে ইনকাম করার অনেক ধরনের পথ রয়েছে। আমি আপনাদের আজকে তিনটি বিষয় নিয়ে আলোচনা করব যে পদ্ধতি গুলোকে কাজে লাগে আপনারা মাসের শেষে একটি মোটা Amount ইনকাম করে নিতে পারবেন।


গুগল এডসেন্স (Google Adsense)


আপনি ইউটিউবে ভিডিও Upload করে সেই ভিডিওগুলো কে মনটাই স্কোরে আপনার ভিডিওতে লাগাতে পারেন পরিমাণের আয় আপনি করতে পারেন। তার জন্য আপনাকে একটি Youtube Channel  তৈরি করতে হবে এবং কন্টিনিউ সেই চ্যানেলটিতে ভিডিও আপলোড করতে হবে। মনে রাখবেন আপনাকে সেই ধরনের ভিডিও আপলোড করতে হবে যে লি মানুষ দেখতে পছন্দ করে,শিখতে পছন্দ করেন.

প্রথম প্রথম ভিডিও আপলোড করার সময় হতে পারে আপনার ভিডিওতে Viewer অর্থাৎ দর্শক আসছে না। কিন্তু আপনি যদি প্রতিনিয়ত কোয়ালিটি ভিডিও আপলোড করেন আপনার চ্যানেলটি অবশ্যই গুরু করবে এবং আপনার অর্থাৎ দর্শকও বাড়বে।

 যখন আপনার চ্যানেলটি রাগ করবে তখন আপনার সাবস্ক্রাইবার বাড়তে শুরু করবে। তখন আপনি গুগোল অ্যাডসেন্সে সাথে আপনার ইউটিউব চ্যানেলটি এড দেখানোর জন্য অ্যাপ্রুভ করে নিন।

Appruve  হয়ে গেলে আপনি আপনার ভিডিওতে অ্যাড লাগাতে পারবেন এবং আপনার যত বেশি দর্শক ভিডিওটা দেখবে আপনার ইনকাম তত বেশি দ্বিগুণ হবে।


অ্যাফিলিয়েট মার্কেটিং করে ইনকাম



একটি ইউটিউব চ্যানেল বানিয়ে এবং Product Review ভিডিও আপলোড করে আপনি প্রতিমাসে টাকা ইনকাম করতে পারবেন।যদি আপনি না জেনে থাকেন যে এফিলিয়েট মার্কেটিং কি তাহলে আপনাকে জানিয়ে নাকি যে যদি কোন কোম্পানির কোন প্রোডাক্ট আপনার লিংকের দ্বারা বিক্রি হয় তাহলে সেই কোম্পানির তরফ থেকে আপনি কমিশন পাবেন।

অ্যাফিলিয়েট মার্কেটিং করার জন্য আপনাকে প্রথমে অ্যাফিলিয়েট প্রোগ্রামে Join হতে হবে যে কোম্পানির প্রডাক্ট আপনি সেল করতে চান।

এর পরে আপনি আপনার দেওয়া মানে দর্শককে কোন প্রোডাক্ট এর জন্য রিকুমেন্ট করতে পারেন। এবং আপনার Description-এ সেই প্রডাক্ট Link লাগিয়ে দিতে পারেন। যদি কোন ব্যক্তি আপনার ভিডিও ডিসক্রিপশন গিয়ে ওই প্রোডাক্টটি Buy করেন তাহলে আপনি ওই কোম্পানির তরফ থেকে মোটা অংকের কমিশন পাবেন। অ্যাফিলিয়েট মার্কেটিং ইউটিউব থেকে ইনকাম করার একটি ভাল পদ্ধতি


স্পনসর্শিপ দিয়ে ইনকাম


ইউটিউব থেকে ইনকাম করার একটি ভাল পদ্ধতি হল Sponsorship ।কোন কোম্পানী বা কোন ব্যক্তিগত মানুষের কোন একটি প্রডাক্ট কে আপনার ইউটিউব এর ভিডিওর মাধ্যমে দর্শকের কাছে পৌঁছে দেওয়াই হল Sponsorship যখন আপনার সাবস্ক্রাইবার এবং View বাড়তে থাকবে তখন বিভিন্ন কোম্পানি আপনাকে তাদের Product সম্বন্ধে বলার জন্য টাকা দেবেন। 

আপনাকে কিছুই করতে হবেনা শুধু ওই Product এর ছোট্ট একটি রিভিউ আপনার দর্শককে বলতে হবে। এই কয়েক সেকেন্ডের একটা কাজ করে আপনি 200 থেকে 500 ডলার পর্যন্ত নিতে পারেন।

এক্ষেত্রে একটি বিষয় মাথায় রাখা খুব দরকার যে কোন খারাপ Product কে আপনার দর্শকের কাছে পৌঁছে দেওয়া ঠিক নয়। কারন দর্শক আপনাকে আস্তে আস্তে বিশ্বাস করতে থাকবে, শুধুমাত্র কিছু টাকার বিনিময়ে যে বিশ্বাসের সুযোগ দেওয়াটা ঠিক নয়।





বন্ধুরা আশা করছি আমি আপনাদের সম্পূর্ণ ভাবে বোঝাতে পেরেছি যে একটি ইউটিউব চ্যানেল বানিয়ে আপনি ইউটিউব থেকে কিভাবে ইনকাম করবেন। এ বিষয়ে যদি আপনার কোন মতামত অথবা কোন প্রশ্ন মনের মধ্যে এসে থাকে তাহলে আপনি কমেন্ট বক্সে গিয়ে তা লিখতে পারেন।



পোস্টটি পড়ার জন্য অসংখ্য ধন্যবাদ
Previous
Next Post »